ঢাকা, ০২ জুলাই, ২০২০
সর্বশেষ:
সেহরি ও ইফতারের সময় সূচি : ঢাকায় প্রথম রোজার সেহরির শেষ সময় রাত ৪টা ৫ মিনিটে আর ইফতার হবে সন্ধ্যা ৬টা ২৮ মিনিটে। আইইডিসিআর এর করোনা কন্ট্রোল রুম (০১৭০০৭০৫৭৩৭) অথবা হটলাইন নম্বরে (০১৯৩৭১১০০১১, ০১৯৩৭০০০০১১, ০১৯২৭৭১১৭৮৪, ০১৯২৭৭১১৭৮৫, ০১৯৪৪৩৩৩২২২, ০১৫৫০০৬৪৯০১–০৫) যোগাযোগ করা যাবে। এ ছাড়া করোনাসংক্রান্ত তথ্য জানতে বা সহযোগিতা পেতে স্বাস্থ্য বাতায়ন ১৬২৬৩ এবং ৩৩৩ নম্বরে ফোন করা যাবে। অনলাইনে করোনা নিয়ে যোগাযোগ করতে আইইডিসিআরের ই-মেইল [email protected] এবং ফেসবুক পেজে (Iedcr,COVID19 Control Room) যোগাযোগ করা যাবে। জরুরি প্রয়োজনে কল করুন- ৯৯৯

চক্ষু চড়কগাছ! শাড়ির দাম ৪০ লাখ, কিন্তু কেন? 

ইত্যাদি ডেস্ক

প্রকাশিত: ২৩:২৪, ১২ জুলাই ২০১৯  

ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

ভারতবর্ষের বেশিরভাগ নারীরই পছন্দের পোশাক শাড়ি । বিশেষ করে বাঙালী নারীদের সৌন্দর্য্যের পূর্ণতা দেয় যেন শাড়ি। কত ধরনের শাড়ি যে আছে বাজারে ইয়ত্তা নেই। 

তাঁতের শাড়ি, কোটা শাড়ি, জামদানী শাড়ি কিংবা সিল্কের শাড়ি সব ধরনের শাড়ি পছন্দ করেন নারীরা। এসব শাড়ির দামও হাতের নাগালের মধ্যেই থাকে। তবে বিশ্বে এমন কিছু শাড়ি আছে যা খুব কম মানুষেরই কেনার সাধ্য আছে। 

আর পৃথিবীর সবচেয়ে দামী শাড়িটির দাম শুনলে তো অনেকেরই চক্ষু চড়কগাছ হয়ে যাবে। গিনেস বুকে জায়গা করে নেয়া বিখ্যাত এই শাড়িটির দাম ৪০ লাখ টাকা।

আমাদের পাশের দেশ ভারতে তৈরি হয়েছে এই শাড়িটি। কাপড়ের মান, নকশা এবং হাতের কাজের জন্য শাড়ির দাম বাড়লেও এই শাড়িটির দাম বেড়েছে ভিন্ন কারণে। প্রায় অর্ধকোটি টাকা মূল্যের এই শাড়িটির ক্রেতারও অভাব ছিল না। ২০০৮ সালেই এই শাড়িটি বিক্রি হয়েছিল দিল্লিতে। শাড়িটি তৈরি করেছে চেন্নাই সিল্ক সংস্থা নামে একটি শাড়ি তৈরি প্রতিষ্ঠান। আর এজন্যই এই শাড়ির নাম দেয়া হয়েছে 'দ্য চেন্নাই সিল্ক'।

পৃথিবীর সবচেয়ে দামি শাড়ি হিসেবে এটির স্বীকৃতিও মিলেছে গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস এর কাছ থেকে। এজন্য স্বীকৃতি পত্র তুলে দেয়া হয়েছে শাড়িটির প্রস্তুতকারক প্রতিশঠান চেন্নাই সিল্ক সংস্থার হাতে।

আট কেজি ওজনের এই শাড়িতে স্বর্ণ, হীরে, প্ল্যাটিনাম, সিলভার, রুবি, মুক্তা এবং পান্নার মতো আরো অনেক মূল্যবান ধাতু রয়েছে। ৬০ গ্রামের মতো স্বর্ণ এবং ৩ ক্যারেটের মতো হীরে ছাড়াও প্ল্যাটিমান রয়েছে ১২০ মিলিগ্রাম। দামি পাথর এবং ধাতু দিয়ে নকশা করায় এই শাড়িটি এতটা দামি হয়ে উঠেছে। তবে শাড়িটি তৈরি করা হয়েছিল কুয়েতের কয়েকজন ব্যবসায়ীর অনুরোধে। শাড়িটির ডিজাইন করেছেন প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান চেন্নাই সিল্কের ডিরেক্টর শিবলিঙ্গম।

চেন্নাই সিল্কের এক কর্মকর্তা রমেশ রাজা জানান, 'আভিজাত্য ও নকশা ফুটিয়ে তুলতে হীরা, মণি-মুক্তাসহ নবরত্ন খ্যাত বেশি কিছু পাথর খচিত করা হয়েছে এই শাড়িটিতে। অ্যাম্ব্রয়ডারিতে ব্যবহার করা হয়েছে স্বর্ণ, রৌপ্য ও প্লাটিনামের কাজ। যার ফলে এটি বিশ্বের সবচেয়ে দামি শাড়ি হতে পেরেছে।'

শাড়িতে অবশ্য আরেকটি বিষয় ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। বিখ্যাত শিল্পী রবি বর্মার আঁকা ছবি 'গ্যালাক্সি অব মিউজিশিয়ানস' ফুটিয়ে তোলা হয়েছে সুতার বুননে। এক বছর ধরে তৈরি করা বিশ্বের সবচেয়ে দামি এই শাড়িটির পেছনে ৩৬ জন কর্মীকে।

তবে এধরনের দামি শাড়ি তৈরিতে চেন্নাই সিল্কের এটিই প্রথম কাজ নয়। কয়েকবছর আগেও এই প্রতিষ্ঠানটি দুই থেকে পাঁচ লাখ রুপি মূল্যের 'বুবলি' নামে এক ধরনের সুগন্ধি শাড়ি তৈরি করেছিল। যা বেশ সমাদৃত হয়েছিল।

সূত্র : এনডিটিভি

নিউজওয়ান২৪.কম/আ.রাফি

ইত্যাদি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত