ঢাকা, ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
সর্বশেষ:
বগুড়া ও যশোরের উপনির্বাচন এবং চসিকের সিটি নির্বাচন ২৯ মার্চ জরুরি প্রয়োজনে কল করুন- ৯৯৯

বাংলাদেশে উবারে বেশি যাত্রী উঠেন বিকালে

স্টাফ রিপোর্টার

প্রকাশিত: ১৬:৫০, ৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

-ফাইল ফটো

-ফাইল ফটো

ঢাকায় তথা বাংলাদেশে রাইড শেয়ারিং সার্ভিস উবারে সবচেয়ে বেশি মানুষ যাতায়াত করেন বিকেল পাঁচটা থেকে সন্ধ্যা সাতটা পর্যন্ত সময়ে। উবারের রাইড সার্ভিসগুলোর মধ্যে এদেশে প্রথম পছন্দ উবার মোটো, অর্থাৎ উবারের মোটরসাইকেল সার্ভিস। আর দ্বিতীয় স্থানে আছে উবার এক্স।

রাজধানীতে রেলস্টেশন, বিমানবন্দর ও বাসস্টপের বাইরে উবারে চলাচলকারী যাত্রীরা সবচেয়ে বেশি যান কূটনৈতিক এলাকা গুলশান ১-এ। শীর্ষ পাঁচ জনপ্রিয় গন্তব্যস্থলের বাকি চারটি হলো যথাক্রমে যমুনা ফিউচার পার্ক, বসুন্ধরা সিটি শপিং কমপ্লেক্স, ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা ও গুলশান ২। গন্তব্য হিসেবে ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা অবশ্য সাময়িক- যা এখন নেই।

অন-ডিমান্ড রাইড শেয়ারিং কোম্পানি উবার গতকাল বৃহস্পতিবার গণমাধ্যমে পাঠানো  এ সংক্রান্ত এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য তুলে ধরেছে। ‘২০১৯ সালে বাংলাদেশ যেভাবে চলাফেরা করেছে’ শীর্ষক প্রতিবেদনটি গতকালই প্রকাশ করা হয়। এতে বলা হয়েছে, মাস বিবেচনায় গত বছরের নভেম্বর-ডিসেম্বরে বাংলাদেশিরা সবচেয়ে বেশি উবার ব্যবহার করেছেন। অন্য মাসগুলোর মধ্যে অক্টোবর, সেপ্টেম্বর ও জুলাইয়ে উবারে বেশি চড়েছেন বাংলাদেশে বসবাসকারী মানুষ।

প্রতিবেদনে জানানো হয়, বাংলাদেশে উবারে সর্বোচ্চ সংখ্যক যাত্রী চড়েছিলেন গত ৫ ডিসেম্বর। এ ছাড়া ৫,১২ ও ৮ ডিসেম্বর, ২৮ নভেম্বর এবং ১৫ ডিসেম্বর সর্বাধিক যাত্রী ওঠেন উবারে।

বাংলাদেশি যাত্রীরা আন্তর্জাতিক শহরগুলোর মধ্যে কলকাতা, দিল্লি ও চেন্নাইয়ে রাইড শেয়ারিং যান হিসেবে সবচেয়ে বেশি ব্যবহার করেন উবার।

উবার যাত্রীদের মতামত ও নিজস্ব ডেটা মানে তথ্য-উপাত্ত বিশ্লেষণের মাধ্যমে এই প্রতিবেদন তৈরি হয়েছে। এতে বলা হয়, সময়ের সঙ্গে সঙ্গে দেশে রাইড শেয়ারিংয়ের চাহিদা বাড়ছে।

বাংলাদেশ ও দক্ষিণ এশিয়ার উবার প্রধান প্রভজিৎ সিং প্রতিবেদনটি সম্পর্কে বলেন, ‘২০১৯ সালে বাংলাদেশের গতিশীলতা কেমন ছিল, তা দেশবাসীকে জানাতে পেরে আমরা আনন্দিত। দেখে ভালো লাগছে যে আমাদের অনেক রকম মোবিলিটি সলিউশনের যে লক্ষ্য, তা এ দেশের যাত্রীদের প্রতিদিনের জীবনের সঙ্গে খুব সুন্দরভাবে মিশে গেছে এবং তাঁরা আমাদের বেশ কিছু সহজলভ্য, নির্ভরযোগ্য ও সাশ্রয়ী অফার গ্রহণ করছেন। ২০২০ সাল এবং এর পরবর্তী সময়েও আমরা আমাদের যাত্রীদের নিরবচ্ছিন্ন যাতায়াত সেবা প্রদানে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।’

প্রতিবেদনে আরো জানানো হয়- বাংলাদেশে উবারের চালকদের জন্য ব্যস্ততম সময় হলো সন্ধ্যা সাতটা। এর পরের চারটি পিক-আওয়ার বা ব্যস্ত সময় হলো বিকেল পাঁচটা ও সন্ধ্যা ছয়টা, রাত আটটা এবং বিকেল চারটা। 

তবে দেশে চলমান অন্যান্য রাইড শেয়ারিং কোম্পানি যেমন পাঠাও, সহজ, ওভাই এর পক্ষ থেকে এ ধরনের কোনো তথ্য প্রকাশ করা হয়নি। অর্থাৎ এটা শুধু উবারে চলাচলকারীদের ওপর ভিত্তি করে তৈরি প্রতিবেদন।
নিউজওয়ান২৪.কম/আরকে

ইত্যাদি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত