ঢাকা, ১২ ডিসেম্বর, ২০১৯
সর্বশেষ:
জরুরি প্রয়োজনে কল করুন- ৯৯৯

আজ রোববার, ১ ডিসেম্বর: রাজধানীতে যা যা বন্ধ এবং খোলা

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ০৯:৪৪, ১ ডিসেম্বর ২০১৯  

ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

কর্মব্যস্ত নগরে ছোটাছুটির গন্তব্য অনেকটা নির্ধারিত। শপিংমল, পার্ক ও বিনোদন কেন্দ্রগুলোতেই থাকে সবার ঝোঁক। তবে এগুলোরও তো রয়েছে ছুটি বা বন্ধের ঝামেলা।

আজ আপনি ফ্রি থাকলেও পছন্দের জায়গাটি কি খোলা আছে? এমন জটলা প্রতিনিয়তই সামনে আসে।

তো আর দেরী না করে চলুন জেনে নিই; আজ রোববার (১ ডিসেম্বর) রাজধানীতে যে সব দর্শনীয় স্থান, এলাকা এবং মার্কেটগুলো বন্ধ এবং খোলা থাকবে। আর একটি কথা, এখানে শুধু বন্ধের তালিকা দেয়া হলো। আর বাকি সব খোলা।

বন্ধ থাকবে যে সব এলাকা:
আগারগাঁ, তালতলা, শেরে বাংলা নগর, শেওড়া পাড়া, কাজী পাড়া, পল্লবী, মিরপুর-১০, মিরপুর-১১, মিরপুর-১২, মিরপুর-১৩, মিরপুর-১৪, ইব্রাহীমপুর, কচুক্ষেত, কাফরুল, মহাখালী, নিউ ডিওএসএইচ, ওল্ড ডিওএসএইচ, কাকলী, তেজগাঁও ওল্ড এয়ারপোর্ট এরিয়া, তেজগাঁ ইন্ডাস্ট্রিয়াল এরিয়া, ক্যান্টনমেন্ট, গুলশান-১, ২, বনানী, মহাখালী কমার্শিয়াল এরিয়া, নাখালপাড়া, মহাখালী ইন্টার সিটি বাস টার্মিনাল এরিয়া, রামপুরা, বনশ্রী, খিলগাঁও, গোড়ান, মালিবাগের একাংশ, বাসাবো, ধলপুর, সায়েদাবাদ, মাদারটেক, মুগদা, কমলাপুরের একাংশ, যাত্রাবাড়ী একাংশ, শনির আখড়া, দনিয়া, রায়েরবাগ, সানারপাড়।

বন্ধ থাকবে যে সব মার্কেট:
বিসিএস কম্পিউটার সিটি (আইডিবি), পল্লবী সুপার মার্কেট, মিরপুর বেনারসী পল্লী, ইব্রাহীমপুর বাজার, রজনীগন্ধা মার্কেট, ইউএই মৈত্রী কমপ্লেক্স, বনানী সুপার মার্কেট, ডিসিসি মার্কেট গুলশান-১ এবং ২, গুলশান পিংক সিটি, মোল্লা টাওয়ার, আল-আমিন সুপার মার্কেট, রামপুরা সুপার মার্কেট, মালিবাগ সুপার মার্কেট, তালতলা সিটি কর্পোরেশন মার্কেট, কমলাপুর স্টেডিয়াম মার্কেট, গোরান বাজার, আবেদিন টাওয়ার, ঢাকা শপিং সেন্টার, আয়েশা মোশারফ শপিং কমপ্লেক্স, মিতালী অ্যান্ড ফ্রেন্ড সুপার মার্কেট।

বন্ধ থাকবে যে সব দর্শনীয় স্থান:
লালবাগের কেল্লা: তিন শতকের পুরোনো ঐতিহাসিক স্থান লালবাগের কেল্লা, যাকে দুর্গও বলা হয়। মোঘল সম্রাট আওরঙ্গজেবের তৃতীয় পুত্র শাহজাদা আজম ১৬৭৮ খ্রিস্টাব্দে এই কেল্লা নির্মাণ করেন। কেল্লার অভ্যন্তরে তিনটি পুরার্কীর্তি রয়েছে। প্রথমটি হল পরী বিবির মাজার, দ্বিতীয়টি হল দরবার হল ও হাম্মাম এবং তৃতীয়টি তিন গম্বুজ বিশিষ্ট মসজিদ। এ কেল্লার চারটি ফটকের মধ্যে প্রধান ফটকটি একশ টাকার নোটে মুদ্রিত। বর্তমানে এই ফটকটি বন্ধ রয়েছে। তার বিপরীত দিকের চারটি ফটকের মাঝখানেটি এখন প্রধান ফটক হিসেবে স্বীকৃত। এ ফটকটিই দর্শনার্থীদের জন্য ব্যবহৃত হয়। লালবাগ কেল্লা বা দুর্গ জাদুঘরটিতে প্রবেশ মূল্য হিসেবে দর্শনার্থীদের কাছ থেকে ২ টাকা করে রাখা হয়। কেল্লাটি শনিবারে বন্ধ থাকে। এছাড়া সপ্তাহের বাকি ছয়দিন সকাল ১০টা থেকে ১টা পর্যন্ত এবং দুপুর ২টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত এটি দর্শনার্থীদের জন্য উন্মুক্ত থাকে।

মিরপুর চিড়িয়াখানা: বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় চিড়িয়াখানা অবস্থিত ঢাকার মিরপুর অঞ্চলে। শুধু আকার বা আয়তনের দিক থেকেই নয়। এখানে রয়েছে বিভিন্ন বিরল প্রজাতির জীব-জানোয়ার। মিরপুর চিড়িয়াখানার পাশেই রয়েছে বোটানিক্যাল গার্ডেন। প্রতিদিন সকল ১০টা থেকে সন্ধা ৬টা পর্যন্ত চিড়িয়াখানাটি খোলা থাকে। সাপ্তাহিক বন্ধ রোববার (তবে অন্য কোন সরকারি ছুটি থাকলে খোলা থাকে)।

শিশু পার্ক: ঢাকার শাহবাগে অবস্থিত শিশুপার্কটি বাংলাদেশের অন্যান্য শিশুতোষ পার্কের মধ্যে অন্যতম। এটা প্রতিদিন দুপুর ২টা থেকে সন্ধা ৭টা পর্যন্ত খোলা থাকে। রোববার বন্ধ। উল্লেখ্য যে, বৃহস্পতিবার শুধু ছিন্নমূল শিশুদের জন্য খোলা রাখা হয়। সামান্য প্রবেশ মূল্য দিয়ে এই শিশুপার্কে প্রবেশ করতে হয়। এই শিশুপার্কের বিভিন্ন মেশিনে উঠতে ভিন্ন ভিন্ন পরিমাণের মূল্য প্রদান করতে হয়। তবে তা খুব বেশী নয়।

মুক্তিযুদ্ধ যাদুঘর: ঢাকার সেগুন বাগিচায় মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘর অবস্থিত। রোববার সাপ্তাহিক বন্ধ। এছাড়া সপ্তাহের অন্যান্য দিন সকাল ১০টা থেকে সন্ধা ৬টা পর্যন্ত খোলা থাকে। শুক্রবার বিকেল ৩টা থেকে ৬টা পর্যন্ত খোলা থাকে। জাদুঘরে সামান্য প্রবেশ মূল্য দিয়ে প্রবেশ করতে হয়।

নিউজওযান২৪.কম/এমজেড

আরও পড়ুন
রাজধানী বিভাগের সর্বাধিক পঠিত