ঢাকা, ১৩ আগস্ট, ২০২০
সর্বশেষ:
সেহরি ও ইফতারের সময় সূচি : ঢাকায় প্রথম রোজার সেহরির শেষ সময় রাত ৪টা ৫ মিনিটে আর ইফতার হবে সন্ধ্যা ৬টা ২৮ মিনিটে। আইইডিসিআর এর করোনা কন্ট্রোল রুম (০১৭০০৭০৫৭৩৭) অথবা হটলাইন নম্বরে (০১৯৩৭১১০০১১, ০১৯৩৭০০০০১১, ০১৯২৭৭১১৭৮৪, ০১৯২৭৭১১৭৮৫, ০১৯৪৪৩৩৩২২২, ০১৫৫০০৬৪৯০১–০৫) যোগাযোগ করা যাবে। এ ছাড়া করোনাসংক্রান্ত তথ্য জানতে বা সহযোগিতা পেতে স্বাস্থ্য বাতায়ন ১৬২৬৩ এবং ৩৩৩ নম্বরে ফোন করা যাবে। অনলাইনে করোনা নিয়ে যোগাযোগ করতে আইইডিসিআরের ই-মেইল [email protected] এবং ফেসবুক পেজে (Iedcr,COVID19 Control Room) যোগাযোগ করা যাবে। জরুরি প্রয়োজনে কল করুন- ৯৯৯

ব্যাংক খাত নিয়ে অর্থমন্ত্রীর ক্ষোভ

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৭:৫৪, ১৪ মার্চ ২০১৯  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

দেশের ব্যাংকিং খাত নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। তিনি বলেছেন, ‘ব্যাংকিং খাত আমরা যেভাবে চালাচ্ছি, এভাবে চললে কোনো দিনই উন্নয়ন সম্ভব হবে না।’

বৃহস্পতিবার রাজধানীর ইন্টারকন্টিনেন্টাল হোটেলে অগ্রণী ব্যাংকের বার্ষিক সম্মেলন-২০১৯ এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অর্থমন্ত্রী এই ক্ষোভ প্রকাশ করেন।

অগ্রণী ব্যাংকের চেয়ারম্যান ড. জায়েদ বখতের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবির, অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সচিব মো. আসাদুল ইসলাম, ব্যাংকের পরিচালক কাশেম হুমায়ূন প্রমুখ বক্তৃতা করেন।

অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘স্বল্প মেয়াদি আমানত গ্রহণ করে দীর্ঘমেয়াদি ঋণ দেয়া যেতে পারে না। এর মাধ্যমে যারা উন্নয়নের চিন্তা করেন, তারা বোকার রাজ্যে রয়েছেন।’

এজন্য বন্ড মার্কেটে জোর দিতে হবে বলেও জানান তিনি।

মুস্তফা কামাল বলেন, দেশের ভালো প্রতিষ্ঠান হিসেবে সর্বপ্রথম প্রাণকে দিয়েই বন্ডের বিনিয়োগ শুরু করা হবে। এক্ষেত্রে কেন্দ্রীয় ব্যাংককে প্রয়োজনীয় সহযোগিতা করার পরামর্শ দেন তিনি।

মন্ত্রী আরও বলেন, ‘দেশের উন্নয়নে করের পরিধি আরও বাড়াতে হবে। আমাদের দেশে যারা কর প্রদান করেন, তারাই বারবার দেন। নতুন করে ট্যাক্সের আওতায় আসার উপযোগী অনেকে এই তালিকার অন্তর্ভূক্ত হচ্ছেন না। তাই আগামীতে কর না বাড়িয়ে করের আওতা বাড়ানো হবে।’

স্বাগত বক্তব্যে ব্যাংকের সিইও এবং ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ শামস-উল ইসলাম বলেন, ‘২০১৮ সাল শেষে অগ্রণী ব্যাংকের আমানত দাঁড়িয়েছে ৬২ হাজার ৩৯২ কোটি টাকা। এ সময় ঋণ ও অগ্রিমের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৩৯ হাজার ৫৭৫ কোটি টাকা। শ্রেণিকৃত ঋণ (খেলাপি ঋণ) দাঁড়িয়েছে ৫ হাজার ৭৫১ কোটি টাকা; যা মোট ঋণের ১৬.২১ শতাংশ। আলোচিত সময়ে এর শাখার সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৯৫২টিতে।’ 

নিউজওয়ান২৪/ইরু

অর্থ-কড়ি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত