ঢাকা, ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
সর্বশেষ:
বগুড়া ও যশোরের উপনির্বাচন এবং চসিকের সিটি নির্বাচন ২৯ মার্চ জরুরি প্রয়োজনে কল করুন- ৯৯৯

নকল ওয়েবসাইট করে `সংবাদ প্রতারণা`, জালিয়াত গ্রেপ্তার

স্টাফ রিপোর্টার

প্রকাশিত: ২১:০১, ১২ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

নূর মোহাম্মদ

নূর মোহাম্মদ

নূর মোহাম্মদ পেশায় একজন প্রকাশক। তবে এটা তার বাইরের পরিচয়। ভেতরে ভেতরে তিনি অভিনব এক জালিয়াত চক্রের সদস্য। এরা মানুষের আবেগ নিয়ে, বিশ্বাস নিয়ে ভয়াবহ প্রতারণা করে থাকে। তারা পাঠকপ্রিয় সংবাদ মাধ্যমের লোগো নকল করে, নকল ওয়েবসাইট বানিয়ে তাতে সরকার বিরোধী ভূয়া খবর পরিবেশন করে থাকেন অধিক লাইক-শেয়ার পাওয়ার জন্য। ওইসব ক্ষতিকারক, বিভ্রান্তিকর ভূয়া নিউজে ব্যাপক লাইক-শেয়ারের বদৌলতে ফেসবুক ও গুগল থেকে তাঁরা বিপুল অর্থ পেয়ে থাকেন। 

এতদিন এমন প্রতারণামূলক কর্মকাণ্ড নির্বিঘ্নে চালিয়ে আসলেও এবার র‌্যাবের হাতে ধরা পড়েছেন এই ঘুঘু। নূর বগুড়ার দুপচাঁচিয়া থানার তালুচ গ্রামের মোহাম্মদের জালাল উদ্দিন আহমেদেদর ছেলে। এর আগে তাঁর এক সঙ্গীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল।
  
র‌্যাব কর্মকর্তা জানান, জাতীয়ভাবে জনপ্রিয় ও শীর্ষ পত্রিকার ওয়েবসাইটের আদলে নকল ওয়েবসাইট তৈরি করে মিথ্যা ও বানোয়াট সংবাদ প্রচারের অভিযোগে রাজধানীর মোহাম্মদপুর এলাকা থেকে নূর মোহাম্মদকে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি রাজধানীর বাংলাবাজারের নর্থ ব্রুক হল রোড এলাকার গার্ডিয়ান পাবলিকেশন্সের এমডি। 

র‌্যাব-২ এর এএসপি জাহিদ আহসান জানান, নকল ওয়েবসাইটের মাধ্যমে পাঠকদের বিভ্রান্ত করে ফেক নিউজ তৈরি করে ছড়াতো তারা। বিবিসি বাংলা, প্রথম আলো, আমার দেশ, নয়া দিগন্তের মতো প্রতিষ্ঠানের এরকম ফেক ওয়েবসাইট তৈরি করা হয়েছে। পুরোপুরি একই রঙে ও ডিজাইনে এসব ওয়েবসাইট তৈরি করা হয়। ভালো করে খেয়াল করলে দেখা যাবে আসলগুলোর সঙ্গে ফেক ওয়েবসাইটগুলোর ডোমেইন যেমন আলাদা, খবরের ধরণের সঙ্গেও পার্থক্য রয়েছে। তারা যে নিউজসাইটকে নকল করে তার সঙ্গে তাদের ভূয়া সাইটের ডোমেইন নাম কাছাকাছি মিলিয়ে রাখে। এরপর আসল লোগো ব্যবহার করে সেখানে 

মাঝে মাঝে কায়দা করে ভূয়া তথ্য দিয়ে বিভ্রান্তিকর প্রতিবেদন প্রকাশ করে। সাধারণ সরলমনা পাঠকদের চোখে তা সহজে ধরা পড়ে না। এসব ভূয়া সংবাদ তারা ইউটিউব ও ফেসবুকসহ অন্যান্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচার করে আসছিল। প্রথম আলো, বিবিসি বাংলাসহ দেশি-বিদেশি বেশ কয়েকটি সংবাদ মাধ্যমের ভূয়া পেজ তৈরি করে ভূয়া খবর প্রকাশ করে আসছে তারা দীর্ঘদিন ধরে। 

এসব ঘটনার সূত্র্রে গত বছর ২৫ নভেম্বর ঢাকার রেলওয়ে থানায় মামলা দায়ের করা হয়। মামলার আসামি হিসেবে এনামুল হক নামের একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। তার সহযোগি নূর মোহাম্মদ এতদিন পলাতক ছিলেন। শেষপর্যন্ত র্যাবের হাতে পাকড়াও হয়েছে এই ঘুঘু। 
র‌্যাবের জিজ্ঞাসাবাদে নূর মোহাম্মদ জানান, তারা সরকার বিরোধী প্রপাগান্ডা ছড়ানোর কাজে বিভিন্ন জাতীয় পত্রিকার হুবহু নকল ওয়েব পোর্টালের ডোমেইন হোস্টিং করে থাকেন। সাধারণত কোনো পোস্ট এক হাজারের বেশি ভিউ, লাইক বা শেয়ার হলে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ ২৫০ থেকে ৩০০ টাকা করে প্রদান করে যা ব্যাংক অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে ডোমেইনের স্বত্ত্বাধিকারী হিসেবে তাঁরা পেয়ে থাকেন।
স্বাধীনতা বিরোধী কুচক্রিমহল দেশে-বিদেশে সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন, বিনষ্ট ও অস্থিতিশীলতা তৈরির উদ্দেশ্যে জনপ্রিয় ও নামি-দামি দেশি-বিদেশি

পত্রিকার ওয়েবসাইটের নকল করে মূল পত্রিকাগুলোর খবরের চুম্বক অংশ ঠিক রেখে অসৎ উদ্দেশ্যে তার মাঝে ভূয়া খবর পরিবেশন করে আসছে- এগুলো তারই প্রমাণ।
নিউজওয়ান২৪.কম/এএ

আরও পড়ুন
অপরাধ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত