ঢাকা, ৩০ মার্চ, ২০২০
সর্বশেষ:
জ্বর, কাশি, শ্বাসকষ্ট, মাংসপেশি ও গাঁটে ব্যথাসহ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার উপসর্গ দেখা দিলে আইইডিসিআরের সঙ্গে যোগাযোগ করুন। আইইডিসিআরের হটলাইন নম্বর: ০১৯২৭৭১১৭৮৪, ০১৯২৭৭১১৭৮৫, ০১৯৩৭০০০০১১, ০১৯৩৭১১০০১১ জরুরি প্রয়োজনে কল করুন- ৯৯৯

‘আগামী ১০০ বছরের মধ্যে পৃথিবী ছাড়তে হবে মানুষকে’

বিজ্ঞান ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৫:৫৪, ৫ মে ২০১৭   আপডেট: ১৫:৫৬, ৫ মে ২০১৭

পদার্থবিজ্ঞানী স্টিফেন হকিং বিশ্বাস করেন এই ধরণীতে মানুবজাতির আয়ু ক্রমেই ফুরিয়ে আসছে। অনেকদিন ধরেই এ কথা বলে আসছেন এই প্রখ্যাত বিজ্ঞানী।

কিন্তু বিবিসির নতুন এক তথ্যচিত্রে হকিং তার নতুন তত্ব পরীক্ষা করবেন যে, টিকে থাকতে হলে আগামী ১০০ বছরের মধ্যে নতুন গ্রহ খুঁজে বের করতে হবে মানবজাতিকে। অন্যথায়, নিশ্চিহ্ন হয়ে যেতে হবে এই পৃথিবীর বুক থেকে। তথ্যচিত্রটির নামও দেখা হয়েছে ‘স্টিফেন হকিং: এক্সপিডিশন নিউ আর্থ (স্টিফেন হকিং: নতুন গ্রহের সন্ধানে)’। বিবিসির টুমোরো’ ওয়ার্ল্ড অনুষ্ঠানের অংশ হিসেবে এই সামারে তথ্যচিত্রটি প্রচার করার কথা রয়েছে।
এতে দেখানো হবে যে, হকিং যে দাবি করছেন, তা শুনতে যত উদ্ভট শোনাক, বাস্তবে তা নয়।

ইউএসএ টুডের খবরে বলা হয়, মহাবিশ্ব নিয়ে দুনিয়ার অন্যতম শীর্ষ তাত্বিক বিজ্ঞানী হকিং সতর্ক করে আসছেন যে, জলবায়ু পরিবর্তন থেকে শুরু করে পারমাণবিক যুদ্ধ ও জীনগতভাবে উদ্ভাবিত ভাইরাসের মতো ভয়াবহ সব হুমকির সম্মুখীন মানবজাতি। সবকিছু হতাশাচ্ছন্ন হলেও, হকিং মনে করেন, কিছু আশা এখনও আছে। মানুষকে অবশ্যই এই সময়ের মধ্যে নতুন পৃথিবী খুঁজে পেতে হবে।  

২০১৬ সালে বৃটেনের অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় ইউনিয়নে এক বক্তৃতায় হকিং বলেন, ‘মানবজাতির ভবিষ্যতের জন্য আমাদেরকে অবশ্যই মহাকাশে যাওয়া অব্যাহত রাখতে হবে।’ এর আগেও হকিং বলেছিলেন, আমাদের এই ভঙ্গুর গ্রহ বের হতে না পারলে আরও ১০০০ বছর মানবজাতি টিকে থাকতে পারবে না।

নিউজওয়ান২৪.কম

মোবাইল-পিসি-টেক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত