ঢাকা, ১০ এপ্রিল, ২০২০
সর্বশেষ:
আইইডিসিআর এর করোনা কন্ট্রোল রুম (০১৭০০৭০৫৭৩৭) অথবা হটলাইন নম্বরে (০১৯৩৭১১০০১১, ০১৯৩৭০০০০১১, ০১৯২৭৭১১৭৮৪, ০১৯২৭৭১১৭৮৫, ০১৯৪৪৩৩৩২২২, ০১৫৫০০৬৪৯০১–০৫) যোগাযোগ করা যাবে। এ ছাড়া করোনাসংক্রান্ত তথ্য জানতে বা সহযোগিতা পেতে স্বাস্থ্য বাতায়ন ১৬২৬৩ এবং ৩৩৩ নম্বরে ফোন করা যাবে। অনলাইনে করোনা নিয়ে যোগাযোগ করতে আইইডিসিআরের ই-মেইল [email protected] এবং ফেসবুক পেজে (Iedcr,COVID19 Control Room) যোগাযোগ করা যাবে। জরুরি প্রয়োজনে কল করুন- ৯৯৯

প্রীতির দলে নেই শেবাগ, প্রশ্ন উঠেছে ‘সম্পর্ক’ নিয়ে!

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১০:০৫, ৫ নভেম্বর ২০১৮  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের সঙ্গ ছেড়়েছেন বীরেন্দ্র শেবাগ। শনিবার নিজেই টুইটারে জানিয়েছেন কিংসদের সঙ্গে বিচ্ছেদের কথা। টানা দুই মৌসুম ক্রিকেটার হিসেবে পাঞ্জাবের হয়ে খেলার পরে কোচিং স্টাফে যোগ দেন তিনি। মেন্টরশিপের পাশাপাশি ক্রিকেট অপারেশন বিভাগের প্রধান ছিলেন তিনি।

তবে শেবাগের মেন্টরশিপে মোটেই ভাল ফলাফল করতে পারেনি কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব। আইপিএল তালিকায় যথাক্রমে অষ্টম, পঞ্চম এবং সপ্তম স্থানে শেষ করে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব। গত মৌসুমে রবিচন্দ্রন অশ্বিনকে অধিনায়ক করে প্রীতির কিংস ইলেভেন। তবে শুরুটা ভাল হলেও শেষটা মধুর হয়নি। লিগ তালিকার শেষ থেকে দুই নম্বরে সমাপ্ত করে তারা।

তবে শেবাগের প্রস্থানে প্রশ্ন উঠে গেছে প্রীতির সঙ্গে তার সম্পর্ক নিয়ে। গত মৌসুমে প্রকাশ্যেই রয়্যালস ম্যাচের পরে বাদানুবাদে জড়িয়ে পড়েন তিনি। কেন এবার প্রীতির দল ছাড়লেন শেবাগ। নেপথ্যে উঠে এসেছে চাঞ্চল্যকর তথ্য।

সম্প্রতি শেবাগ জানান, ফ্র্যাঞ্চাইজির তরফ থেকে একটা ইমেইল করা হয়েছিল আমাকে, যেখানে জানানো হয় আসন্ন মৌসুমে মেন্টর কিংবা ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডরের আর প্রয়োজন নেই। কিংস ব্রিগেডের সদস্য হিসেবে বেশ ভাল সময় কাটিয়েছি। এটা ওদের সিদ্ধান্ত। সিদ্ধান্ত গ্রহণের সময় আমার কার্যত কোনো ভূমিকাই ছিল না।

শেবাগ আরো জানান, আমার মনে হয় না প্রীতির সঙ্গে ঘটনার কোন যোগাযোগ রয়েছে। যদি ওরা নতুন ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর কিংবা মেন্টর চায়, সেটা ওরা সিদ্ধান্ত নেবেন।

আসন্ন মৌসুমে কিংস ইলেভেন ঘর গুছিয়ে নামছে। কোচ ব্র্যাড হজকে সরিয়ে নিয়ে আসা হয়েছে মাইক হেসনকে, যিনি কিছুদিন আগেই নিউজিল্যান্ডের কোচের পদ থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন।

নিউজওয়ান২৪/জেডএস