ঢাকা, ১২ ডিসেম্বর, ২০১৯
সর্বশেষ:
জরুরি প্রয়োজনে কল করুন- ৯৯৯

টাইগার শিবিরে হোয়াইট ওয়াশের শঙ্কা!

স্পোর্টস ডেস্ক

প্রকাশিত: ০৯:১০, ৩১ জুলাই ২০১৯  

ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

বাংলাদেশ ও শ্রীলংকা সিরিজে শক্তির তুলনায় এগিয়ে রাখা হয় টাইগারদের। সম্ভাব্য সিরিজজয়ী দল হিসেবেও বাংলাদেশের পক্ষে বাজি ধরেছিলেন অনেকে।

কিন্ত প্রথম দুই ওয়ানডে হেরে এরই মাঝে সিরিজ খুইয়েছে সফরকারীরা। শঙ্কা জেগেছে হোয়াইটয়াশ হওয়ার। শ্রীলংকার বিপক্ষে শেষ ম্যাচের আগে তাই সবার চিন্তা একটাই, বাংলাদেশ পারবে তো ম্যাচ জিতে মান বাঁচাতে? 

নিজেদের আন্তর্জাতিক পথচলার শুরুর দিকে ম্যাচ জেতাই স্বপ্ন ছিল বাংলাদেশের জন্য। ম্যাচের পর ম্যাচ হারা, হোয়াইটওয়াশ হওয়া ছিল স্বাভাবিক একটি ব্যাপার। তবে ধীরে ধীরে উন্নতি করে বাংলাদেশ। দু-একটি করে ম্যাচ জিততে জিততে এখন সিরিজ জেতার লক্ষ্যে মাঠে নামে টাইগাররা। প্রতিপক্ষকে হোয়াইটওয়াশ করার ঘটনাও ইতোমধ্যে ঘটিয়ে ফেলেছে কয়েকবার। 

হোয়াইটওয়াশ হওয়ার স্মৃতিও প্রায় ভুলতে বসেছে টাইগাররা। অবস্থা এমন যে বিগত ৩ বছরে বাংলাদেশ মাত্র দুইবার এমন কিছুর শিকার হয়েছে। সর্বশেষ ঘটনা ঘটেছিল ২০১৮ সালে, নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে। তাই টাইগার সমর্থকদের একটাই চিন্তা, পারবে কি বাংলাদেশ লজ্জার হাত থেকে বাঁচতে? 

সিরিজের শেষ ম্যাচ লংকানরা তাদের সাবেক খেলোয়াড় নুয়ান কুলাসেকারাকে উৎসর্গ করেছে। ফলে শেষ ম্যাচটাও তারা লড়বে সেরাটা দিয়েই।

এদিকে ভেতর বাহির মিলিয়ে কোনদিকেই স্বস্তিতে নেই টাইগাররা। অধিনায়ক তামিম, তার সঙ্গী সৌম্য বরাবরের মতো দলকে ভালো শুরু এনে দিতে ব্যর্থ। একই পথযাত্রী মোহাম্মদ মিথুনও। এক মুশফিকই যেটুকু লড়াই করে যাচ্ছেন। 

লোয়ার-মিডল অর্ডার ব্যাটিং টাইগারদের আরেক দুশ্চিন্তার নাম। রিয়াদ, মোসাদ্দেক কেউই পারছেন না ইনিংস বড় করতে। সাব্বির সিরিজের প্রথম ম্যাচে ভালো করলেও পরের ম্যাচে ফ্লপ। 

বোলিং সাইড জন্ম দিচ্ছে আরো হতাশার। প্রথম ম্যাচে তিন শতাধিক রান দেওয়ার পর পরের ম্যাচে তুলে নিতে পেরেছে মাত্র তিন উইকেট। ফিল্ডিংয়ের অবস্থা তথৈবচ। ক্যাচ মিস আর ফিল্ডিং মিসের মহড়া প্রতি ম্যাচের নিয়মিত ঘটনা। তাই শেষ ম্যাচেও টাইগারদের নিয়ে আশাবাদী মানুষের সংখ্যা একবারেই কমে এসেছে। 

বিশ্বকাপ চলাকালীন সময়ে দলের ভেতর অন্তর্দ্বন্দ্বের খবর দলের অবস্থা আরো বাজেভাবে তুলে ধরেছে। সিনিয়র ক্রিকেটারদের মনোমালিন্য অফ ফর্মও ভাবাচ্ছে টিম ম্যানেজমেন্টকে। 

তবুও বাংলাদেশের প্রতি ভরসা রেখেই অনেকে আশা করছেন শেষ ম্যাচ জিতবে টাইগাররা। জিততে হলে দল হিসেবে পারফর্ম করার বিকল্প নেই টাইগারদের।

ওপেনিং জুটি ভালো শুরু এনে দিতে পারলে বাকী কাজও সহজ হয়ে যাবে দলের জন্য। এছাড়া বোলিং ডিপার্টমেন্টেও আসতে পারে বেশ কিছু পরিবর্তন। সবকিছু মিলিয়ে নিজেদের সেরাটা দিতে পারলে জয় অসম্ভব না বাংলাদেশের জন্য। 

নিউজওয়ান২৪.কম/এসডি